‘চিন্তা-ভাবনা চলছে এইচএসসি পরীক্ষায় বিষয় কমানোর ’

18

নিজস্ব প্রতিবেদক : আসন্ন উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষায় বিষয় কমানোর চিন্তা-ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। শনিবার (২৭ জুন) শিক্ষা বিষয়ক রিপোর্টারদের সঙ্গে ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান।

অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘এবারের এইচএসসির সিলেবাস কমানোর কোনও যৌক্তিকতা নেই। কারণ শিক্ষার্থীরা তাদের সিলেবাস সম্পন্ন করেছে। এখন হতে পারে, যে পরীক্ষার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট এত লাখ লাখ পরিবার, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য, প্রশাসনের এত মানুষ, এত শিক্ষক−সবাইকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলবো? আমরা সেটিকে কম সময়ে করতে পারি কিনা, কম সংখ্যক পরীক্ষা নিতে পারি কিনা সবকিছুই ভাবছি।’

এর আগে গত ২৩ জুন জাতীয় সংসদে শিক্ষামন্ত্রী জানান, উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি হলেই এইচএসসি পরীক্ষা নেওয়া হবে। এই পরীক্ষা গ্রহণের সব প্রস্তুতি সরকারের রয়েছে। এপ্রিলে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও করোনা পরিস্থিতির কারণে এই পরীক্ষা স্থগিত করা হয়।

করোনাকালে টিউশন ফি আদায়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং অভিভাবকেদের উভয় পক্ষকেই ছাড় দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘বড় একটা সমস্যা হচ্ছে—শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ফি দেওয়া নিয়ে। ফি না পেলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো তাদের শিক্ষকদের কী করে বেতন দেবে? আর শিক্ষকরা তো অধিকাংশই বেতনের ওপর নির্ভরশীল। কেউ কেউ টিউশনি করাতেন, এখন সব বন্ধ।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের আর্থিক অবস্থা এক রকম নয়। যেসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নিজেদের কিছুটা হলেও আগামী কয়েক মাস চলার মতো, কোনোভাবে চলার মতো সামর্থ্য আছে, তাদের অনুরোধ করবো ফি কিস্তিতে হোক বা কিছুদিন বাদ দিয়ে পরে নেওয়া হোক, সেটি করতে পারলে ভালো।

না হলেও দেখেন কতটা ছাড় দেওয়া যায়, সেটা চেষ্টা করবেন। ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে সম্মেলনে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. মাহবুব হোসেন, গণসাক্ষরতা অভিযানের নির্বাহী পরিচালক রাশেদা কে চৌধুরীসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।